Places To Visit in PuruliaPlaces To Visit in Purulia

Places To Visit in Purulia: পুরুলিয়া অঞ্চলটি তার মনোরম দৃশ্য, ঘাসের পাহাড় এবং সবুজ চারপাশের জন্য পরিচিত। নিরিবিলি পরিবেশ এবং ইতিহাস ও সংস্কৃতির অনন্য সমন্বয়ের কারণে এটি একটি আদর্শ অবকাশের স্থান।

এর ভূগোল এবং অ্যাক্সেসযোগ্যতার কারণে, পুরুলিয়া পশ্চিমবঙ্গের অন্যতম জনপ্রিয় পর্যটন গন্তব্য হয়ে উঠেছে। দেশের বেশিরভাগ মানুষই পুরুলিয়া থেকে বিভিন্ন ভ্রমণ বিকল্পের মাধ্যমে সহজেই যাতায়াত করতে পারে।

পুরুলিয়ার হাইলাইটগুলি এটিকে দৈনন্দিন জীবন থেকে বিরতি নেওয়ার এবং সুন্দর পরিবেশে কয়েক দিন কাটানোর জন্য আদর্শ অবকাশের স্থান করে তোলে। তাজা বাতাস এবং অত্যাশ্চর্য পরিবেশের কারণে আপনি নিঃসন্দেহে স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করবেন।

পুরুলিয়া এলাকাটি মন্দির, পুকুর, উঁচু পাহাড় এবং অন্যান্য মনোমুগ্ধকর এবং মনোরম পর্যটন আকর্ষণ দ্বারা বেষ্টিত। এই অবস্থানের মনোমুগ্ধকর দৃশ্য এবং দর্শনীয় সৌন্দর্য উপভোগ করার পাশাপাশি, পর্যটকরা বিভিন্ন উত্তেজনাপূর্ণ ক্রিয়াকলাপ যেমন বোটিং, রক ক্লাইম্বিং এবং আরও অনেক কিছুতে নিযুক্ত হতে পারে।

পুরুলিয়ায় দর্শনীয় স্থান | Places To Visit in Purulia

জয়চণ্ডী পাহাড় (Joychandi Hill Purulia)

Joychandi Hill Purulia

পুরুলিয়ার অন্যতম দর্শনীয় স্থান জয়চন্ডী পাহাড় (Places To Visit in Purulia), এই এলাকার অন্যতম প্রধান আকর্ষণ, দক্ষ রক ক্লাইম্বারদের জন্য একটি স্বর্গ। পাহাড়, বা পাহাড়ের নামের পিছনে দেবী চণ্ডী অনুপ্রেরণা এবং তার উপাসনালয় এর শীর্ষে দেখা যেতে পারে।

জয় চণ্ডী মন্দিরে উঠতে এবং দেবীর কাছে প্রার্থনা করার জন্য 400টি সিঁড়ি রয়েছে। সুন্দর দৃশ্য চূড়ায় আরোহণকে উপভোগ্য করে তোলে। জয়চণ্ডী পাহাড় পর্যটন উৎসব হল জয়চণ্ডী পাহাড়ের পাদদেশে অনুষ্ঠিত একটি বার্ষিক অনুষ্ঠান, যা সারা দেশ থেকে দর্শকদের আকর্ষণ করে।

অযোধ্যা পাহাড় (Ayodhya Hills Purulia)

Ayodhya Hills Purulia

অযোধ্যা পাহাড় হল আরেকটি ভাল-পছন্দের পুরুলিয়া গন্তব্য। দলমা পর্বতশ্রেণীর একটি অংশ পাহাড়ের কিংবদন্তি গুরুত্ব রয়েছে। কথিত আছে যে ভগবান রাম ও সীতা যখন বনবাসে ছিলেন তখন এখানে বাস করেছিলেন।

অযোধ্যা পাহাড়ের মনোরম এবং স্থানীয় প্রাণী একটি চমৎকার হাইকিং অবস্থান প্রদান করে। পাখি প্রেমীদের জন্য একটি স্বর্গ, এলাকাটি ঘন বন এবং হ্রদ দ্বারা সীমাবদ্ধ। আশেপাশের অবশ্যই দেখার জায়গাগুলি হল গোর্শব্রু এবং ময়ুর পাহাড়।

গাজাবুরু পাহাড় (Gajaburu Hills Purulia)

Gajaburu Hills Purulia
Gajaburu Hills: Places To Visit in Purulia

পুরুলিয়া জেলা থেকে প্রায় 59 কিলোমিটার দূরে অবস্থিত গজাবুরু পাহাড়, অ্যাডভেঞ্চার সন্ধানকারীদের জন্য আরেকটি চমৎকার স্থান। গাজাবুরু পাহাড়ের পাথুরে এবং এবড়োখেবড়ো ঢাল এটিকে একটি রোমাঞ্চকর দুঃসাহসিক স্থান করে তুলেছে যেখানে দর্শকরা রক ক্লাইম্বিং, হাইকিং, ক্যাম্পিং বা বিশ্রামে নিযুক্ত হতে পারে। আপনি আকর্ষণীয় পরিবেশ এবং লোভনীয় সৌন্দর্য দ্বারা মুগ্ধ হবেন।

দোলডাঙ্গা (Doladanga Purulia)

Doladanga purulia
দোলডাঙ্গা: পুরুলিয়ার অন্যতম দর্শনীয় স্থান

কংসাবতীর তীরে এই মনোরম জলাশয়টি বসে আছে। সাম্প্রতিক বছরগুলিতে, সুন্দর পরিবেশ এবং স্বাস্থ্যকর পরিবেশের কারণে এই স্থানটি একটি পর্যটন কেন্দ্রে পরিণত হয়েছে।

দর্শনার্থীরা এই অবস্থানে ক্যাম্পিং এবং বোটিং এর মতো উপভোগ্য ক্রিয়াকলাপগুলিতে যোগ দিতে পারেন। এই জাদুকরী অবস্থানটি বিশ্রাম, রিফ্রেশমেন্ট এবং উত্তেজনাপূর্ণ ক্রিয়াকলাপ খুঁজছেন এমন ব্যক্তিদের জন্য আদর্শ।

ব্রান্টি জলাধার বা মুরাদি হ্রদ (Brunty Reservoir or Muradi Lake purulia)

Brunty Reservoir or Muradi Lake purulia
Muradi Lake: Visiting Place in Purulia

আপনি যদি প্রকৃতিতে নির্মলতা চান তবে ব্রান্টি জলাধারটি একটি চমৎকার পছন্দ। এই অবস্থানটি একটি মনোরম দৃশ্য এবং একটি শান্তিপূর্ণ পরিবেশ প্রদান করে এবং স্থানীয় পর্যটকদের মধ্যে এটি একটি প্রিয়।

এটি একটি ব্যক্তিগত জায়গা যেখানে কম ভিড় এবং আরও শান্ত। আপনি যদি এই সুন্দর এলাকায় ক্যাম্প করতে চান, আপনি অনেক আকর্ষক কার্যকলাপ করতে পারেন, আপনি অবসরে গভীর গাছের পাশে ঘুরে বেড়াতে পারেন, বিশ্রাম নিতে পারেন এবং প্রকৃতির সৌন্দর্য উপভোগ করতে পারেন।

চেলিয়ামা (Cheliama Purulia)

Cheliama Purulia

চেলিয়ামা, একটি দীর্ঘ এবং সমৃদ্ধ ইতিহাস সহ একটি গ্রাম, পুরুলিয়ার সবচেয়ে পছন্দের পর্যটন স্পটগুলির মধ্যে একটি, এবং এই অঞ্চলে অনেকগুলি মন্দির রয়েছে, যেগুলি 17 শতকের স্থাপত্যের মাস্টারপিস।

চেলিয়ামা মন্দিরে পাওয়া ভাস্কর্য এবং বস্তুর মাধ্যমে প্রাচীন যুগের সংস্কৃতি এবং সৃজনশীলতা প্রকাশ করে। রাধা-গোবিন্দ মন্দিরটি তাদের মধ্যে রয়েছে এবং এটি সারা বছর ধরে সারা দেশ থেকে দর্শনার্থীদের আকর্ষণ করে। চেলিয়ামা তার উল্লেখযোগ্য অতীতের কারণে ইতিহাস প্রেমীদের এবং প্রত্নতাত্ত্বিকদের জন্য একটি আশ্রয়স্থল।

মুরুগামা বাঁধ (Murugama Dam Purulia)

Murugama Dam purulia

অত্যাশ্চর্য সূর্যোদয় এবং আকর্ষণীয় সূর্যাস্ত একটি জনপ্রিয় পর্যটন স্থান মুরুগুমা বাঁধে দেখা যেতে পারে। অত্যাশ্চর্য দৃশ্য এবং সতেজ বাতাসের মধ্যে এখানে একটি সন্ধ্যা কাটানো একটি অবিস্মরণীয় অভিজ্ঞতা হতে পারে। অন্যান্য বিকল্পগুলির মধ্যে রয়েছে পাহাড়ের শীর্ষে হাইকিং বা স্থানীয় সম্প্রদায়ের চারপাশে ঘুরে বেড়ানো।

গড়পঞ্চকোট (Purulia Garpanchkot)

Gaṛapanchokot purulia

এটি পুরুলিয়া জেলার উত্তর-পূর্ব অংশে, বর্ধমান এবং ঝাড়খণ্ড জেলার সীমান্তের কাছে, পঞ্চকোটের (পঞ্চেত পাহাড়) নীচে অবস্থিত।

পাহাড়ের চূড়াটি দামোদর নদীর উপর পাঞ্চেত বাঁধ এবং এর জলাধারের একটি মনোরম এবং মনোরম দৃশ্য প্রদান করে। পাঞ্চেত বাঁধে পাখিদের দেখা চাক্ষুষ আনন্দ।

দেউলঘাট (Deulghat Purulia)

Deulghat purulia
Deulghat: Visiting Place In Purulia

দেউলঘাট এমন একটি জায়গা যেখানে মন্দির পাওয়া যায়, তাদের নাম অনুসারে। কানসাই নদীর পার্শ্ববর্তী এলাকায় প্রায় 15টি মন্দির রয়েছে। দেউলঘাটকে পুরুলিয়ার অন্যতম জনপ্রিয় পর্যটন গন্তব্যে পরিণত করার অন্যতম প্রধান কারণ হল মন্দিরের অসামান্য স্থাপত্য, যা এর মার্জিত সাজসজ্জার দ্বারা পরিপূরক।

মন্দিরটি আজকাল সম্প্রদায়ের ঐতিহ্যবাহী জীবনধারা প্রদর্শন করে। মন্দিরটি ধ্বংসাবশেষের চেয়ে একটু বেশি হলেও দেউলঘাট এখনও একটি উল্লেখযোগ্য পর্যটন গন্তব্য।

বড়ন্তি (Baranti Purulia)

Baranti purulia

বড়ন্তি একটি ছোট্ট, শান্তিপূর্ণ এবং সুন্দর জায়গা (Purulia Tourist Spot)। দুটি ছোট পাহাড় চূড়া, মুরাদি পাহাড় এবং বড়ন্তি পাহাড়ের মধ্যে একটি 2 কিলোমিটার দীর্ঘ সেচ প্রকল্প বাঁধ রয়েছে। রামচন্দ্রপুর সেচ প্রকল্পটি বরন্তির কাছাকাছি, এবং বরন্তি জলাধারটির একটি দুর্দান্ত দৃশ্য দেখায়।

এটি এমন একটি অবস্থান যেখানে কেউ দৈনন্দিন জীবনের রুটিনকে সরিয়ে দিতে পারে এবং তাদের মন ও আত্মাকে সতেজ করতে পারে। আশেপাশের গ্রামের স্থানীয়দের মধ্যে দিনব্যাপী পিকনিকের জন্য বারন্তি একটি জনপ্রিয় গন্তব্য।

সাহেব বাঁধ (Saheb Bandh Purulia)

saheb bandh purulia
Saheb Bandh: Purulia Tourist Spot

পুরুলিয়ার এই উল্লেখযোগ্য পর্যটন আকর্ষণ (Places To Visit in Purulia) একটি বড় হ্রদ যা 50 একর এলাকা জুড়ে রয়েছে। পরিযায়ী পাখিরা ঝকঝকে হ্রদে প্রচুর পরিমাণে জড়ো হয় এবং শীতকালে সাইবেরিয়া এবং বেলুচিস্তান থেকে পাখিরা এই মনোরম স্থানে যায়। সাহেব বাঁধ এইভাবে যারা পাখি দেখা উপভোগ করেন তাদের জন্য একটি চমৎকার জায়গা।

19 শতকে সৃষ্ট এই বিশাল হ্রদটি একটি জাতীয় হ্রদ হিসাবে স্বীকৃত হয়েছে। উপরন্তু, হ্রদে শিকারা রাইডগুলি আপনার ভ্রমণকে উন্নত করতে শুরু করেছে। কাশ্মীরের মতো, আপনি এখানে পোশাক ভাড়া নিতে পারেন এবং শিকারা চালানোর সময় পোজ দিতে পারেন।


iNFO বাংলা দেখার জন্য ধন্যবাদ

By Tanmoy

আমি তন্ময় ঘোরই, কলকাতা, পশ্চিমবঙ্গের একজন ব্লগার এবং ইউটিউবার। আমি পাঁচ বছরেরও বেশি সময় ধরে ব্লগিং করছি, এবং আমি বিভিন্ন বিষয়ে সহায়ক তথ্য শেয়ার করতে পছন্দ করি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *